মিথ্যা ও মানহানিকর সংবাদের প্রতিবাদ জানিয়েছেন জনপ্রিয় পল্লী ডাক্তার জামাল উদ্দিন

গত কিছুদিন ধরে বিভিন্ন অনলাইন নিউজ পোর্টাল ও ফেসবুকে আমার বিরুদ্ধে আজগুবি কিছু অপপ্রচার লক্ষ্য করছি। কথিত সংবাদগুলোতে আমাকে ইয়াবা ব্যবসায়ী হিসেবে তুলে ধরা হয়েছে।

আমি এমন অবাস্তব, মনগড়া, ভিত্তিহীন, বানোয়াট ও উদ্দেশ্যমূলক মিথ্যা সংবাদের তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানাচ্ছি। আমি এ ব্যাপারে এলাকার মুরব্বি ও গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সাথে কথা বলেছি। তাদের পরামর্শে আমি আইনি পদক্ষেপ নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। কিন্তু করোনার কারণে আদালতের কার্যক্রম বন্ধ থাকায় মামলা করতে বিলম্ব হচ্ছে। প্রথম থেকে আমি প্রতিবাদ দিতে ইচ্ছুক ছিলাম না। তারপরও শুভাকাঙ্ক্ষীদের অনুরোধে প্রতিবাদ জানাতে সম্মত হলাম।

মূলত আমি একজন বৈধ ব্যবসায়ী। কোটবাজার ষ্টেশনে দীর্ঘদিন অত্যন্ত সুনামের সাথে ফার্মেসী ব্যবসা করেছি। এর পর কোর্স সম্পন্ন করে পল্লী ডাক্তার হিসেবে অসহায় দরিদ্র সাধারণ রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাচ্ছি। একজন সফল পল্লী চিকিৎসক হিসেবে কোটবাজারের সীমানা ছাড়িয়ে আশপাশের এলাকা থেকে চিকিৎসা সেবা নিতে মানুষ আমার কাছে ছুটে আসেন। আমার কাছে বেশী মানুষ চিকিৎসা নিতে আসার আরও একটি কারণ হল, আমি দরিদ্র মানুষ থেকে ভিজিট নিইনা এবং বিনামূল্যে ওষুধ দিয়ে থাকি। পাশাপাশি আমার এলাকায় গরীব দরিদ্র মানুষদের সাধ্য মতো সাহায্য সহযোগিতা করে থাকি। আমার সেবা ও ভালবাসায় মুগ্ধ এলাকাবাসীর অনুরোধে এইবার আমার ওয়ার্ডে মেম্বার নির্বাচন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

এতে এলাকার কতিপয় ব্যক্তি আমার বিরুদ্ধে উঠেপড়ে লেগেছে। যারা মূলত ইয়াবা ব্যবসায়ীদের পৃষ্ঠপোষক, সন্ত্রাসীদের আশ্রয় প্রশ্রয় দাতা এবং মাদকসেবন কারীদের গডফাদার।

সমাজ বিরোধী এসব অখাদ্য কুখাদ্য লোক প্রতিনিয়ত আমার নামে মিথ্যা রটনা চালিয়ে যাচ্ছে। কিন্তু আমি এসব অপপ্রচারে মোটেও বিচলিত নয়। পিতামাতার দোয়া, সততা, ন্যায়নীতি, বৈধ উপার্জনই আমার পুঁজি। পৃথিবীর কোন শক্তি আমাকে আমার নীতি থেকে চুল পরিমাণ নড়াতে পারবে না।

পরিশেষে মিথ্যা, বিভ্রান্তিকর ও কাল্পনিক অপসংবাদে কোন ব্যক্তি ও দায়িত্বশীল মহলকে বিভ্রান্ত না হওয়ার অনুরোধ জানাচ্ছি।

প্রতিবাদকারী
জামাল উদ্দিন
পল্লী চিকিৎসক
কোটবাজার