কক্সবাজারে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ হত্যা মামলার মূল আসামি নিহত


নিজস্ব প্রতিবেদক ◑
কক্সবাজার সদর উপজেলার খুরুশকুলে গত ১২ মে কায়ছারকে গলাকেটে হত্যাকান্ডের মূল আসামী শাখাওয়াত হোসেন (২৪) বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছে। নিহত শাখাওয়াত হোসেন সদরের পিএমখালী ইউনিয়নের সিকদার পাড়া (পেইল্লা কাটা) এলাকার শফি আলমের ছেলে।

সত্যতা নিশ্চিত করেছেন কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি সৈয়দ আবু মো. শাহজাহান কবির।

ওসি জানান, নিহত শাখাওয়াত হোসেনকে আটকের পর তার দেখানো তথ্যমতে অস্ত্র উদ্ধার করতে ১৯মে (মঙ্গলবার) ভোররাতে খুরুস্কুল ইউনিয়নের উত্তর রাস্তার পাড়া চিংড়ি ঘেরের পাশে চৌফলদন্ডী ব্রীজের একটু উত্তরে গেলে সেখানে পূর্ব থেকে ওৎ পেতে থাকা অস্ত্র-সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে।

পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছুড়লে শাখাওয়াত হোসেন ও ২ পুলিশ সদস্য আহত হয়। পরে পুলিশ অাহত শাখাওয়াত হোসেনের পাশে একটি এলজিও এবং কয়েক রাউন্ড গুলি পায়। পুলিশ গুরতর আহত শাখাওয়াত হোসেনেকে চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে অাসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন। আহত পুলিশ সদস্যদ্বয়কে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়।

কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি সৈয়দ আবু মোঃ শাহজাহান কবির আরও জানান, নিহত শাখাওয়াত হোসেনের বিরুদ্ধে কক্সবাজার সদর মডেল থানায় ২৮/২০১৯ নম্বর হত্যা মামলা সহ আরো কিছু মামলা রয়েছে।

ইতোমধ্যে উক্ত হত্যা মামলায় গ্রেপ্তারকৃত অন্যান্য আসামীরা শাখাওয়াত হোসেন উক্ত হত্যা মামলার প্রধান হোতা বলে ১৬৪ ধারায় ম্যাজিস্ট্রেটের কাছে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন। শাখাওয়াত হোসেনের লাশ কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে ময়নাতদন্তের পর তাঁর আত্মীয় স্বজনকে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান, ওসি সৈয়দ আবু মোঃ শাহজাহান কবির।